সবচেয়ে বিপজ্জনক সেক্স পজিশন ‘কাউগার্ল’

অনেকের কাছেই যৌনতার সময় ‘ওম্যান অন টপ’ বেশ মোহনীয় বিষয় বলে মনে হতে পারে। কিন্তু এটি মোটেও নিরাপদ নয়। যৌনতার সময় কোন অবস্থান মানুষের আঘাত পাওয়ার সম্ভাবনা বাড়ে এমন এক গবেষণায় দেখা গেছে, নারীর উপরে অবস্থানই সবচেয়ে বিপজ্জনক। এক প্রতিবেদনে বিষয়টি জানিয়েছে টেলিগ্রাফ।
যৌনতায় সবচেয়ে বিপজ্জনক অবস্থান হলো ‘কাউগার্ল’ নামে পরিচিত একটি পজিশন। অনেকে একে ‘হর্সরাইডিং’-ও বলে থাকেন। এ পজিশনে নারী উপরে থাকে। গবেষকরা জানাচ্ছেন, ‘কাউগার্ল’ পজিশনে যৌনতার সময় আঘাত পাওয়ার সম্ভাবনা অনেক বেড়ে যায়। এ অবস্থানে যৌনতায় হাড় ভাঙার সম্ভাবনাও সবচেয়ে বেশি থাকে।

কাউগার্ল পজিশনে মূল সমস্যাটি হয় নিয়ন্ত্রণের ওপর। এ ক্ষেত্রে নারীর দেহের ওজন পুরুষের যৌনাঙ্গের ওপর পড়ে, যার ফলে অনেক সময় সঠিকভাবে চাপ প্রয়োগ হয় না। ফলে এদিক-ওদিক হয়ে দুর্ঘটনা ঘটতে দেখা যায়। অন্যদিকে সাধারণভাবে প্রচলিত যৌনতার আসনগুলো কিছুটা নিরাপদ। বিশেষ করে যে আসনে পুরুষের ওপর পূর্ণ নিয়ন্ত্রণ থাকে, তাই নিরাপদ বলে জানাচ্ছেন বিশেষজ্ঞরা।

যৌনতার সময় যেসব আঘাত পাওয়ার ঘটনা ঘটে সেগুলো এ গবেষণায় তালিকাবদ্ধ করা হয়। গত ১৩ বছরের পরিসংখ্যান এতে বিবেচনা করা হয়। গবেষণায় দেখা যায়, সবচেয়ে বেশি আঘাতের ঘটনা ঘটে কাউগার্ল পজিশনে। এ অবস্থানে প্রায় অর্ধেক আঘাত পাওয়ার ঘটনা ঘটে। এর পরের অবস্থান রয়েছে বহুল প্রচলিত ‘ম্যান অন টপ’ অবস্থান। এ অবস্থায় যৌনতায় ২১ ভাগ আঘাত পাওয়ার ঘটনা ঘটে।

যৌনতায় আঘাত পাওয়াদের গড় বয়স ৩৪ বছর। প্রাথমিকভাবে এ সমস্যায় পতিত ব্যক্তিরা হাড় ভাঙার মতো শব্দ ও যন্ত্রণার কথা জানান। এরপর সাধারণত ছয় ঘণ্টা অপেক্ষা করেও যদি অবস্থার উন্নতি না হয় তখন তারা চিকিৎসকের দ্বারস্থ হন।
গবেষণার ফলাফল প্রকাশিত হয়েছে ‘অ্যাডভান্সেস ইন ইউরোলজি’ জার্নালে।

এ বিষয়ে আরও পড়ুন   হস্তমৈথুন ছাড়ার উপায় জানুন